শিরোনাম :
এক কলে জানা যাবে পাসপোর্ট-ভিসার সব তথ্য নিষ্ক্রিয়তার দায় ছাত্রদলের ৬ নেতাকে অব্যাহতি প্রথম আলোর সেই সাংবাদিক কাশিমপুর কারাগারে এই সরকারের হাতে কোন মানুষ নিরাপদ নয় : যুবদল সভাপতি স্বাধীনতার নামে সাংবাদিকতা নিয়ে রাজনীতি করা উচিত নয়: তথ্যমন্ত্রী তিন মাসে নির্যাতন ও হয়রানির শিকার ৫৬ সাংবাদিক : আসক দুই হেলিকপ্টার বিধ্বস্তেও ঘটনায় ৯ মার্কিন সেনা নিহত যুদ্ধাবস্থার কারণে বাংলাদেশে দ্রব্যমূল্যের ঊর্ধ্বগতি : শিক্ষামন্ত্রী মার্কিন নাগরিকদের দ্রুত রাশিয়া ছাড়ার আহ্বান খাবারের বিনিময়ে উত্তর কোরিয়ার অস্ত্র চায় রাশিয়া: যুক্তরাষ্ট্র ভারতে পাচারের সময় ৪০ হাজার ডলার জব্দ মধ্যপ্রদেশে মন্দিরে কূপ ধসে মৃতের সংখ্যা বেড়ে ৩৫ আগারগাঁও থেকে দিয়াবাড়ি পর্যন্ত চালু হলো মেট্রোরেলের সব স্টেশন জাল নোট চেনার সহজ উপায় ফের বাড়ছে ব্রয়লার মুরগির দাম

ফতুল্লায় বীর মুক্তিযোদ্ধাকে হত্যা, টাকা ও স্বর্ণালঙ্কার লুট

  • বুধবার, ১ ফেব্রুয়ারী, ২০২৩

নারায়ণগঞ্জ : নারায়ণগঞ্জের ফতুল্লায় বীর মুক্তিযোদ্ধা আবদুল হালিমকে শ্বাসরোধে হত্যা করা হয়েছে। এছাড়াও হত্যার পর তার ঘর থেকে জমি বিক্রির ২০ লাখ টাকা ও স্বর্ণালঙ্কার লুটের অভিযোগ উঠেছে।

মঙ্গলবার আনুমানিক রাত ১১টা থেকে ২টার মধ্যে ফতুল্লার এনায়েতনগর ইউনিয়নের মাওলাবাজার এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। নিহত মুক্তিযোদ্ধা আবদুল হালিম মাওলাবাজার এলাকার মৃত মহব্বত আলীর ছেলে।

বুধবার (১ ফেব্রুয়ারি) সকাল সাড়ে ৭টায় পুলিশ মরদেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য শহরের ভিক্টোরিয়া হাসপাতাল মর্গে লাশ নেয়।

নিহতের ছেলে হাফেজ মো. মাসুদ জানান, পরিবারের লোকজন মঙ্গলবার আত্মীয়র বাড়িতে বেড়াতে যায়। রাতে তার বাবা ও তিনি নিজ নিজ ঘরে ঘুমিয়ে ছিলেন। রাত প্রায় ১১টার সময় ঘুমন্ত অবস্থায় তিনজন লোক তার হাত-পা ও চোঁখ বেঁধে মারধর করে। সেসময় তার বাবার ঘরে কতোজন ছিলো তার জানা নেই। তবে দুর্বৃত্তরা রাত ২টায় যাওয়ার সময় জমি বিক্রির ২০ লাখের বেশি টাকা ও স্বর্ণালঙ্কার নিয়ে যায়। দুবৃর্ত্তরা কীভাবে রুমে প্রবেশ করেছেন তাও বলতে পারেন না মাসুদ।

ঘটনাস্থলে যাওয়া ফতুল্লা মডেল থানার এসআই হুমায়ুন কবির জানান, ময়নাতদন্ত রিপোর্টে পেলে জানা যাবে মৃত্যুর কারণ। তবে যে ঘরে ঘটনা ঘটেছে, সে ঘরে বাইরে থেকে ভেতরে প্রবেশ করার কোনো আলামত পাওয়া যায়নি। ঘরটিতে চারটি সিসি টিভি ক্যামেরা রয়েছে। তবে ক্যামেরার মেশিন থেকে হার্ড ডিক্স খুলে নিয়ে গেছে দুর্বৃত্তরা।

ফতুল্লা মডেল থানার ওসি মোহাম্মদ রিজাউল হক বলেন, নিহতের এক ছেলে দুই মেয়ে। মেয়েরা স্বামীর বাড়ি থাকেন। ছেলের পরিবারের সঙ্গে মুক্তিযোদ্ধা আবদুল হালিম নিজ বাড়িতে থাকেন। ঘটনার সময় ছেলে ও আবদুল হালিম ছাড়া কেউ বাড়িতে ছিলেন না। ঘটনাটি রহস্যজনক। গুরুত্বসহকারে তদন্ত চলছে। পরে বিস্তারিত জানানো হবে।

সংবাটি শেয়ার করুন

এই বিভাগের আরো খরব
© Copyright © 2017 - 2021 Times of Bangla, All Rights Reserved