শিরোনাম :
সমৃদ্ধ অঞ্চল গড়ে তুলতে ভারতের সঙ্গে কাজ করবে বাংলাদেশ: প্রধানমন্ত্রী সংবিধান ভোঁতা ছুরি দিয়ে জবাই করেছিল তারা: সংসদে মেনন শিক্ষার্থীদের সব দাবি বাস্তবায়ন করবো: শিক্ষামন্ত্রী নন-ক্লোজার এগ্রিমেন্টে ভ্যাকসিন কেনা হয়েছে : স্বাস্থ্যমন্ত্রী অর্থপাচার: ৬৯ জনের তথ্য দিল বিএফআইইউ বাসের ধাক্কায় অটোরিকশার ৫ যাত্রী নিহত বিশ্বে পেঁয়াজ উৎপাদনে বাংলাদেশের অবস্থান তৃতীয় নির্বাচন নিয়ে বিএনপির সুনির্দিষ্ট কোনো রূপরেখা নেই: কাদের বাংলাদেশে করোনায় আরও ১৭ জনের মৃত্যু,নতুন শনাক্ত ১৫,৫২৭ ওমিক্রনরোধে স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের নতুন ক্লিনিক্যাল গাইডলাইন দেশের বিরুদ্ধে ষড়যন্ত্র করছে বিএনপি : তথ্যমন্ত্রী র‌্যাবের বিরুদ্ধে মার্কিন নিষেধাজ্ঞা প্রত্যাহারে সময় লাগবে: পররাষ্ট্রমন্ত্রী ওমিক্রনের ঝুঁকি এখনো অনেক বেশি : ডব্লিওএইচও বিনামূল্যে টিকা দেওয়ার বিষয়টি অগ্রাধিকার দিয়েছি : প্রধানমন্ত্রী রাজধানীতে মাদকবিরোধী অভিযানে আটক ৬৬

অ্যাপলের সঙ্গে ডেভেলপারদের সমঝোতা

  • সোমবার, ৩০ আগস্ট, ২০২১

অ্যাপ স্টোরের বাইরে ক্রেতাদের সঙ্গে ডেভেলপাররা কীভাবে যোগাযোগ করবেন, সেই বিষয়ে কড়াকড়ি কমাচ্ছে অ্যাপল। পাশাপাশি ক্ষতিপূরণ হিসেবে ১০ কোটি ডলার দেবে প্রতিষ্ঠানটি। মার্কিন আদালতে একটি ক্লাস অ্যাকশন মামলায় ডেভেলপারদের সঙ্গে প্রস্তাবিত সমঝোতার অংশ হিসেবে এ সিদ্ধান্ত মেনে নিয়েছে ওই টেক জায়ান্ট।

আইওএস অ্যাপের বাইরে লেনদেন প্রক্রিয়া নিয়ে ডেভেলপাররা ই-মেইলের মতো ভিন্ন যোগাযোগ ব্যবস্থা ব্যবহার করতে পারবেন, যতক্ষণ পর্যন্ত ব্যবহারকারীরা ই-মেইল পেতে রাজি আছেন ও ইচ্ছা হলে ই-মেইল পাওয়া বন্ধ করার স্বাধীনতা থাকবে তাদের।

নতুন সমঝোতার ফলে ইন-অ্যাপ পারচেজ বা অ্যাপের ভেতরের লেনদেনের ক্ষেত্রে অ্যাপলকে কমিশন না দিয়ে ক্রেতাদের কাছ থেকে সরাসরি পাওনা সংগ্রহের সুযোগ পাবেন ডেভেলপাররা। ২০১৯ সালের ওই মামলার সমঝোতার অংশ হিসেবে ডেভেলপারদের ১০ কোটি ডলার দেবে অ্যাপল।

আদালতের নথি অনুযায়ী, যে ডেভেলপাররা অ্যাপলের ১০ কোটি ডলারের তহবিল থেকে তাদের পাওয়া বুঝে নেয়ার যোগ্য, ২৫০ ডলার থেকে ৩০ হাজার ডলারের মধ্যে ক্ষতিপূরণ পাবেন তারা।

অ্যাপল আরো জানায়, ১০ কোটি ডলার শুধু যুক্তরাষ্ট্রেরই নয়, বিশ্বের বিভিন্ন প্রান্তের ডেভেলপারদের কাছে পৌঁছে যাবে। এছাড়া ছোট ডেভেলপারদের জন্য ভবিষ্যতে আরো ১০ কোটি ডলারের তহবিল করা হবে। আদালতে আরো কিছু অঙ্গীকার করতে হয়েছে অ্যাপলকে।

এর মধ্যে রয়েছে, অ্যাপ স্টোর স্মল বিজনেস প্রোগ্রামের আওতায় যারা বছরে ১ মিলিয়ন ডলারের কমও আয় করে তাদেরও ১৫ শতাংশ কমিশন সুবিধা দেয়া। অ্যাপ স্টোরে ইন-অ্যাপ কেনাকাটায় ৩০ শতাংশ কমিশন রেখে আসছিল অ্যাপল। ডেভেলপার ও তদারককারী কর্তৃপক্ষের সমালোচনার মুখে চলতি বছর তা ১৫ শতাংশ করে তারা।

আদালতে অন্য প্রতিশ্রুতির মধ্যে রয়েছে, প্রতি বছর অ্যাপ স্টোরের ট্রান্সপারেন্সি প্রতিবেদন প্রকাশ। অ্যাপ স্টোরে কত গ্রাহকের অ্যাকাউন্ট নিষ্ক্রিয় করা হয়েছে বা কতগুলো অ্যাপ সরিয়ে দেয়া হয়েছে, এমন তথ্যাদি থাকতে হবে সে প্রতিবেদনে। প্রথম প্রতিবেদন কবে প্রকাশ হবে তা না জানালেও অ্যাপল প্রতিশ্রুতি দিয়েছে, অন্তত তিন বছর প্রতিবেদন প্রকাশ করে যাবে তারা।

মার্কিন আদালতে অ্যাপলের বিরুদ্ধে মামলাটি করেছিলেন অ্যাপ নির্মাতা ডোনাল্ড ক্যামেরন এবং বাস্কেটবল খেলার প্রশিক্ষণদাতা প্রতিষ্ঠান পিওর সুইট বাস্কেটবল। অ্যাপল অ্যাপ নির্মাতাদের অ্যাপ স্টোরের বাইরে অ্যাপ বিক্রি করতে না দিয়ে এবং ইন-অ্যাপ লেনদেন থেকে কমিশন কেটে নিয়ে প্রতিযোগিতাবিমুখ আচরণ করছে বলে অভিযোগ তুলেছিলেন তারা।

অ্যাপের ভেতরকার লেনদেন থেকে ৩০ শতাংশ কমিশন কেটে রাখত অ্যাপল। এ বিষয়ে একাধিক মামলার মুখে পড়েছে অ্যাপল। তার মধ্যে একটি মামলা করেছে অ্যাপলের সবচেয়ে বড় ডেভেলপারদের অন্যতম এপিক গেমস। জনপ্রিয় গেম ফোর্টনাইটের নির্মাতা এপিক গেমসের অভিযোগ, আইওএস অ্যাপ বিক্রির ওপর একচেটিয়া কর্তৃত্ব ধরে রেখেছে অ্যাপল।

আর আর্থিক লেনদেন নিয়ে অ্যাপলের নিয়মগুলো বেআইনি, কারণ সেগুলো সম্ভাব্য প্রতিযোগীদের কোনো সুযোগ দেয় না।

চলতি বছরের শুরুতে ওই মামলায় জবানবন্দি দিতে আদালতে হাজির হয়েছিলেন অ্যাপল প্রধান টিম কুক। তবে এখনো রায় আসেনি ওই মামলার।

 

সংবাটি শেয়ার করুন

এই বিভাগের আরো খরব
© Copyright © 2017 - 2021 Times of Bangla, All Rights Reserved